৭ মার্চের ভাষণে স্বাধীনতা অর্জনের দিকনির্দেশনাও ছিল : কৃষিমন্ত্রী

বুধবার, মার্চ ১০, ২০২১,৯:১৭ পূর্বাহ্ণ
0
11

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

কৃষিমন্ত্রী ড. মোঃ আব্দুর রাজ্জাক বলেছেন, বঙ্গবন্ধু ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণে স্বাধীনতার ঘোষণা দিয়েছিলেন; একইসাথে এই ভাষণের মাধ্যমে তিনি স্বাধীনতা অর্জনের জন্য কীভাবে আমাদের সংগ্রাম-লড়াই করতে হবে-তার দিকনির্দেশনাও দিয়েছিলেন।

ঐতিহাসিক ৭ মার্চ উপলক্ষে গতকাল সাউথইস্ট বিশ্ববিদ্যালয় আয়োজিত ভার্চুয়াল আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় মন্ত্রী এ কথা বলেন।

‘প্রত্যেক ঘরে ঘরে দুর্গ গড়ে তোলো। তোমাদের যা কিছু আছে, তাই নিয়ে শত্রুর মোকাবিলা করতে হবে’ বঙ্গবন্ধুর ভাষণে এ আহ্বানের উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, একটি গেরিলা যুদ্ধের জন্য সকল দিকনির্দেশনা এতে ছিল। এই জাদুকরী ভাষণের মাধ্যমে তিনি নিরস্ত্র বাঙালিকে জীবনবাজি রেখে যুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়তে উৎসাহিত করেছিলেন, জীবনদানের জন্য প্রস্তুত করেছিলেন। সারা পৃথিবীর মুক্তিকামী মানুষের জন্য এ ভাষণ অনুপ্রেরণার উৎস হিসাবে কাজ করবে। চিরকাল এটি উজ্জ্বল, চিরভাস্বর এবং হিরন্ময় হয়ে থাকবে।

মন্ত্রী আরো বলেন, আমাদের মুক্তিযুদ্ধ একটি মহাকাব্য। আর এ মহাকাব্যের মহানায়ক হলেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। ভাষা আন্দোলন থেকে শুরু করে স্বাধীনতা যুদ্ধ পর্যন্ত সকল আন্দোলনে বঙ্গবন্ধু ছিলেন মূল সংগঠক ও অবিসংবাদিত নেতা। তিনি স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনার ধারক  ও বাহক। সাত কোটি মানুষকে তিনি স্বাধীনতার মন্ত্রে উজ্জীবিত করেছিলেন।

সাউথইস্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. এ এফ এম মফিজুল ইসলামের সভাপতিত্বে  অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন স্কুল অভ্‌ আর্টস অ্যান্ড সোস্যাল সায়েন্সেসের ডিন অধ্যাপক ড. এম এ হাকিম। বিশেষ বক্তব্য রাখেন বোর্ড অভ্‌ ট্রাস্টিজের উপদেষ্টা অধ্যাপক ড. এ এন এম মেশকাত উদ্দীন। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে সাউথইস্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার, ডিন, বিভিন্ন বিভাগীয় চেয়ারম্যান, পরিচালক, শিক্ষক, কর্মকর্তা ও শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে