স্বচ্ছতা, আন্তরিকতা ও একাগ্রতার সাথে প্রকল্প বাস্তবায়ন করতে হবে : প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী

বৃহস্পতিবার, আগস্ট ২০, ২০২০,৩:০৭ পূর্বাহ্ণ
0
5

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

স্বচ্ছতা, আন্তরিকতা ও একাগ্রতার সাথে প্রকল্প বাস্তবায়নের তাগিদ দিয়েছেন মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম।

গতকাল রাজধানীর খামারবাড়িতে প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের সম্মেলন কক্ষে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রীর সভাপতিত্বে ২০১৯-২০ অর্থবছরে সংশোধিত বর্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচিতে অন্তর্ভুক্ত প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের উন্নয়ন প্রকল্পসমূহের জুন, ২০২০ পর্যন্ত বাস্তবায়ন অগ্রগতি পর্যালোচনা সভায় প্রকল্প পরিচালক-সহ প্রকল্প সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের মন্ত্রী এ বিষয়ে তাগিদ দেন।

মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ সচিব রওনক মাহমুদ, অতিরিক্ত সচিব কাজী ওয়াছি উদ্দিন, প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ডা. আবদুল জব্বার শিকদার-সহ মন্ত্রণালয় ও প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ এবং সংশ্লিষ্ট প্রকল্প পরিচালকগণ সভায় উপস্থিত ছিলেন।

সভায় প্রকল্প পরিচালকদের উদ্দেশে মন্ত্রী বলেন, Ôউন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়নে আপনাদের দৃঢ় অঙ্গীকার প্রত্যাশা করি। সকলকে নিজ নিজ দায়বদ্ধতার জায়গা থেকে কাজ করতে হবে। প্রতিকূল পরিস্থিতিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পরিশ্রম করে যাচ্ছেন। এ কারণে বুলবুল, আম্ফান, বৃষ্টি, বন্যা, কোভিড-১৯ এই ৫টি প্রতিকূল পরিস্থিতি মোকাবিলা করেও বিশ্বের কাছে এখনো বাংলাদেশের অবস্থান ভালো। এ বিষয়টি মাথায় রেখে আশা করি প্রত্যাশার জায়গা আপনারা পূরণ করবেন।’

এ সময় মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ সচিব রওনক মাহমুদ বলেন, Ôসরকারি অর্থ হিসেব করে যথাযথ বিধি-বিধান মেনে ব্যয় করতে হবে, যাতে একটি টাকাও অপচয় না হয়। কাজের ক্ষেত্রে গুণগত মান নিশ্চিত করতে হবে। প্রয়োজনে প্রকল্প পরিচালকদের প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করতে হবে।’

সভায় ২০১৯-২০ অর্থবছরে সংশোধিত বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচিতে অন্তর্ভুক্ত প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের ১৯টি প্রকল্পের জুন, ২০২০ পর্যন্ত অগ্রগতি পর্যালোচনা করা হয়। ১৯টি প্রকল্পে সংশোধিত এডিপিতে বরাদ্দ ছিলো ৫ শত ৫০ কোটি ৫ লাখ টাকা। এর বিপরীতে ব্যয় হয়েছে ৪ শত ৮০ কোটি ৫৯ লাখ টাকা। প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের জুন, ২০২০ পর্যন্ত প্রকল্প বাস্তবায়ন অগ্রগতির হার ৮৭ দশমিক ৩৭ শতাংশ।

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে