শোক দিবসে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন কমিটির আলোচনা প্রচার হবে গণমাধ্যমে

শুক্রবার, আগস্ট ১৩, ২০২১,২:২৭ অপরাহ্ণ
0
2

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

জাতীয় শোক দিবস ২০২১ এবং জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৬তম শাহাদতবার্ষিকী উপলক্ষ্যে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন জাতীয় কমিটির আলোচনা অনুষ্ঠান টেলিভিশন, অনলাইন ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচার করা হবে। গতকাল সকালে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির ১১তম সভায় এ সিদ্ধান্তের কথা জানানো হয়। কমিটির প্রধান সমন্বয়ক ড. কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী এর সঞ্চালনায় ভার্চুয়াল প্ল্যাটফর্মে অনুষ্ঠিত এ সভায় সভাপতিত্ব করেন জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির সভাপতি জাতীয় অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম।

সভার শুরুতে সম্প্রতি অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে “বঙ্গবন্ধু টি-টুয়েন্টি সিরিজ” জয়লাভ করায় বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলকে অভিনন্দন জ্ঞাপন করা হয়। প্রধান সমন্বয়ক জানান, কমিটির পক্ষ হতে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষ্যে সকল টেলিভিশন চ্যানেল, অনলাইন মিডিয়া এবং সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচারের জন্য একটি বিশেষ আলোচনা অনুষ্ঠান ধারণের কাজ শুরু হয়েছে। আলোচনা অনুষ্ঠানের সভাপতি হিসাবে প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা উপস্থিত থাকতে সদয় সম্মতি জ্ঞাপন করেছেন। আলোচকবৃন্দের মধ্যে থাকবেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের,  বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের প্রাক্তন চেয়ারম্যান অধ্যাপক আব্দুল মান্নান এবং বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশ। আলোচনা অনুষ্ঠানে বঙ্গবন্ধুর জীবন ও কর্মের উপর একটি অডিওভিজুয়াল প্রদর্শন করা হবে। অনুষ্ঠানটি প্রচারের তারিখ ও সময় গণমাধ্যমে যথাসময়ে প্রকাশ করা হবে। সভায় জানানো হয় জাতীয় কমিটির পক্ষ হতে সারাদেশে সরকারি, বেসরকারি ও স্বায়ত্তশাসিত দপ্তর/প্রতিষ্ঠানসমূহে আগস্ট মাসজুড়ে ড্রপডাউন ব্যানার স্থাপনের জন্য ড্রপডাউন ব্যানারের ডিজাইন সরবরাহ করা হয়েছিল এবং এ প্রেক্ষিতে ডিজাইন অনুসরণ করে ড্রপডাউন ব্যানার স্থাপনের জন্য সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি ধন্যবাদ জ্ঞাপন করা হয়। জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষ্যে তিনটি ডিজাইনের ৬ লক্ষাধিক বাংলা ও ইংরেজি পোস্টার মুদ্রণ করে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের গণযোগাযোগ অধিদপ্তরের মাধ্যমে সারাদেশে এবং পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে বিদেশস্থ বাংলাদেশ মিশনগুলোর সহায়তায় বিদেশে স্থাপনের জন্য প্রেরণ করা হয়েছে। জাতীয় শোক দিবসে জাতীয় পত্রিকাগুলোর সাথে ২ লক্ষাধিক বিশেষ পোস্টার সরবরাহ করা হবে বলে সভায় জানানো হয়। এ ছাড়া আগামী ডিসেম্বর পর্যন্ত জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির পরিকল্পনা অনুযায়ী বিশেষ দিবসসমূহের কর্মসূচি বাস্তবায়নের বিভিন্ন দিক নিয়ে সভায় বিস্তারিত আলোচনা করা হয়।

সভায় অন্যান্যের মধ্যে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ, ক, ম, মোজাম্মেল হক; স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান;  তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী ড. হাছান মাহ্‌মুদ; শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি; সাবেক মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর; যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মোঃ জাহিদ আহসান রাসেল; তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক; জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন; সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ; শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী; সংসদ সদস্য আরমা দত্ত; বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশ, লে. কর্নেল কাজী সাজ্জাদ আলী জহির; বীর প্রতীক, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব এম আলী আজম; যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মো: আখতার হোসেন; গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ শহীদ উল্লা খন্দকার; মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের সচিব মোঃ মাহবুব হোসেন; ধর্ম সচিব মোঃ নুরুল ইসলাম; তথ্য ও সম্প্রচার সচিব মোঃ মকবুল হোসেন; সংস্কৃতি বিষয়ক সচিব মোঃ আবুল মনসুর; বাংলাদেশ পুলিশের অতিরিক্ত মহাপরিদর্শক (প্রশাসন) ড. মোঃ মইনুর রহমান চৌধুরী; গণপূর্ত বিভাগের প্রধান প্রকৌশলী মোহাম্মদ শামীম আখতার; জননিরাপত্তা বিভাগের অতিরিক্ত সচিব জি এস এম জাফরউল্লাহ; প্রফেসর ড. ফখরুল আলম; প্রফেসর ড. রহমত উল্লাহ; বাংলাদেশ টেলিভিশনের মহাপরিচালক সোহরাব হোসেন; বাংলাদেশ বেতারের মহাপরিচালক আহম্মদ কামরুজ্জামান; বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির মহাপরিচালক লিয়াকত আলী লাকী; বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক কবি মুহম্মদ নুরুল হুদা এবং জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির কার্যালয়ের কর্মকর্তাবৃন্দ অংশগ্রহণ করেন।

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে