লকডাউন কার্যকর করতে কমিউনিটিকে অন্তর্ভুক্ত করার ওপর গুরুত্বারোপ স্থানীয় সরকার মন্ত্রীর

বৃহস্পতিবার, জুন ১৮, ২০২০,৯:১২ পূর্বাহ্ণ
0
5

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

জোন ভিত্তিক লকডাউন বিশেষ করে রেড জোনে লকডাউন কার্যকর করতে কমিউনিটিকে অন্তর্ভুক্ত করার ওপর গুরুত্বারোপ করেছেন স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মোঃ তাজুল ইসলাম। সেই সাথে লকডাউন ঘোষিত এলাকায় স্বাস্থ্য সেবাসহ অন্যান্য জরুরি সেবাসমূহ নিশ্চিত করারও তাগিদ দেন তিনি।

          মন্ত্রী গতকাল রাজধানীর পূর্ব রাজাবাজারে চলমান লকডাউন কার্যক্রম পরিদর্শনকালে কথা বলেন। লকডাউনকৃত এলাকায় টেলিমেডিসিন সেবা চালু করার ওপর গুরুত্ব আরোপ করে তাজুল ইসলাম বলেন, জরুরি সেবা দেয়ার জন্য এসব এলাকায় অ্যাম্বুলেন্স সবসময় প্রস্তুত রাখতে হবে, যাতে গুরুতর অসুস্থ রোগীদের দ্রুত হাসপাতালে নেয়া সম্ভব হয়।

          তিনি বলেন, লকডাউনকৃত এলাকায় গরীব দুঃস্থ, খেটে খাওয়া মানুষের বাড়িতে বিনামূল্যে খাদ্যসামগ্রী পৌঁছে দেয়া হচ্ছে। আর সামর্থ্যবানদের কাছে খাদ্যসামগ্রীসহ প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র পৌঁছে দেয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

          পূর্ব রাজাবাজারে লকডাউন কার্যক্রমে সন্তোষ প্রকাশ করে মন্ত্রী আরো বলেন, এখানে পরীক্ষামূলক ভাবে লকডাউন করা হয়েছে এবং এখানকার অভিজ্ঞতা কে কাজে লাগিয়ে ঢাকাসহ সারাদেশে যেখানে লকডাউন প্রয়োজন সেখানে তা গ্রহণ করার পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

          মন্ত্রী বলেন, মানুষের জীবন-জীবিকার কথা বিবেচনায় নিয়ে ইউরোপসহ যেসব দেশে করানো ভাইরাসে সংক্রমিত হয়েছে তারাও সবকিছু চালু করছে। কারণ মানুষকে, দেশের অর্থনীতিকে বাঁচাতে এর বিকল্প নেই। ঢাকা শহরে বেশি সংক্রমিত এলাকাগুলোতে পূর্ব রাজাবাজারের অভিজ্ঞতা কাজে লাগিয়ে সামনে এগিয়ে গেলে প্রাণঘাতী এই ভাইরাস মোকাবিলা করা সম্ভব বলে মন্ত্রী আশা প্রকাশ করেন।

          এসময়, উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম, উত্তর সিটি কর্পোরেশনের প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা বিগ্রেডিয়ার জেনারেল মোমিনুর রহমান মামুন এবং ওয়ার্ড কাউন্সিলরসহ, লকডাউন কার্যক্রমে কর্মরত কর্মকর্তা-কর্মচারীগণ উপস্থিত ছিলেন।

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে