মধুমিতায় ৭ বছরের শিশুকে ধর্ষণ ও হত্যায় ১ কিশোর আটক

মঙ্গলবার, মে ১৯, ২০২০,৫:০৭ অপরাহ্ণ
0
16

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

গাজীপুর মহানগরীর টঙ্গী পূর্ব থানাধীন মধুমিতা এলাকায় ৭ বছরের এক শিশুকে ধর্ষণ ও হত্যার অভিযোগে ১৫ বছরের এক কিশোরকে আটক করেছে র‍্যাব-১। গতকাল (১৮ মে) সকালে এ তথ্য নিশ্চিত করেন গাজীপুরের পোড়াবাড়ি ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার আব্দুল্লাহ আল মামুন এক সংবাদ সম্মেলনে।

তিনি জানান, গত ১৫ মে টঙ্গী পূর্ব থানাধীন মধুমিতা রোডের বেলতলা এলাকায় মামুন মিয়ার মেয়ে মাদ্রাসার ছাত্রী চাঁদনী বাড়ি থেকে খেলার উদ্দেশ্যে বের হয়ে যায়। পরে সে বাড়িতে না ফেরায় মসজিদের মাইক থেকে তাকে সন্ধানের জন্য ঘোষণা দেয়া হয়। পরদিন দুপুর ১টার দিকে বেলতলার একটি ইটের স্তূপের পাশ থেকে শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

এদিকে, রোববার রাত আড়াইটার দিকে টঙ্গী স্টেশন রোড এলাকা থেকে নিলয় (১৫) নামের এক কিশোরকে শিশু হত্যা ও ধর্ষণের সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে গ্রেপ্তার করে র‍্যাব-১ এর একটি দল। তবে ঘটনার মূল হোতাকে গ্রেফতারে র‌্যাবের অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলে জানান ক্যাম্প কমান্ডার লে. কমান্ডার আব্দুল্লাহ আল মামুন।

তিনি বলেন, আটক কিশোর নিলয়ের দেয়া তথ্যমতে, তাদের দলে আরও একজন রয়েছে। তাকে আটকের ব্যাপারে জোর চেষ্টা চালানো হচ্ছে।

ক্যাম্প কমান্ডার আরও বলেন, শিশু চাঁদনীকে তারা ফুল, চুড়ি ও চকলেট দিয়ে ওই ইটের স্তূপের পাশে নিয়ে যায় এবং তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। দুজনে মিলে কয়েকবার ধর্ষণ করায় শিশুটি অসুস্থ ও অজ্ঞান হয়ে যায়। পরে এই ঘটনা জানাজানি হয়ে যাবার ভয়ে নিলয় ও তার সহযোগী শিশু চাঁদনীকে গলাটিপে মেরে ফেলে। পরে শিশুর বাবা থানায় মামলা করে।

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে