বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে প্রধানমন্ত্রীর বাণী

বৃহস্পতিবার, ফেব্রুয়ারি ১১, ২০২১,১০:০৯ পূর্বাহ্ণ
0
7

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী ও ৪১তম জাতীয় সমাবেশে ২০২১ উপলক্ষে আমি বাহিনীর সকল কর্মকর্তা, কর্মচারী এবং সদস্যদেরকে শুভেচ্ছা জানাচ্ছি।

          সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি, স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু  শেখ মুজিবুর রহমানের আহ্বানে সাড়া দিয়ে ১৯৭১ সালে এ বাহিনীর সদস্যরা মহান মুক্তিযুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়েছিলেন। আমি মহান ভাষা আন্দোলনের এ মাসে ভাষা শহীদ আনসার কমাণ্ডার আব্দুল জব্বারসহ সকল ভাষা সৈনিক এবং ৬৭০ জন অকুতোভয় বীর আনসারসহ সকল শহীদের স্মরণ করছি এবং তাদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করছি। মেহেরপুরের মুজিবনগরের আম্রকাননে বাংলাদেশের প্রথম সরকার প্রধানকে ১২ জন বীর আনসার সদস্য ‘গার্ড অভ অনার’ প্রদান করে  এ বাহিনীকে  গৌরবান্বিত করেছেন।

          বর্তমান আওয়ামী লীগ সরকার আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর আধুনিকায়ন ও সক্ষমতা বৃদ্ধিতে অনেক কর্মসূচি বাস্তবায়ন করেছে। বর্তমান সরকারের ১২ বছরের সময়কালে বাহিনীর সদস্যদের জন্য নতুন  পোশাক প্রবর্তন, পারিবারিক  রেশন প্রদান, সাহসিকতা ও সেবামূলক কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ রাষ্ট্রীয় পদক প্রবর্তন, কর্মকর্তাদের জন্য ২য়, তয় ও ৫ম গ্রেডে পদ সৃজন এবং মহাপরিচালকের পদটি প্রথম  গ্রেডে উন্নীতকরণ, অন্যান্য পদের মানোন্নয়ন ও কর্মকর্তাদের বৈদেশিক প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হয়েছে। পাশাপাশি, একটি বিশেষায়িত গার্ড ব্যাটেলিয়নের তিনটি পদবির বেতন গ্রেডের ধাপ উন্নীত করা হয়েছে। ব্যাটেলিয়নগুলোর অবকাঠামোগত উন্নয়ন কার্যক্রম গ্রহণ করা হয়েছে। ইতোমধ্যে ১৫টি ব্যাটেলিয়ন সদরে আধুনিক অবকাঠামো গড়ে মডেল ব্যাটালিয়নের রূপ  দেয়া হয়েছে। অবশিষ্ট ব্যাটেলিয়নগুলোর উন্নয়নও প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। আমাদের সরকার এই বাহিনীর উন্নয়ন ও আধুনিকায়নে প্রয়োজনীয় কার্যক্রম অব্যাহত রাখবে।

          বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনী সরকারের যাবতীয় উন্নয়ন কর্মকাণ্ডের সাফল্যের অন্যতম অংশীদার। জাতীয় ও স্থানীয় নির্বাচন, ঈদ, পূজাসহ বিভিন্ন ধর্মীয় উৎসব এবং জাতীয় গুরু্ত্বপূর্ণ ও সংকটময় মুহুর্তে  দেশের সার্বিক আইন-শৃঙ্খলা রক্ষা এবং জননিরাপত্তায় এ বাহিনীর সদস্যরা আত্মনিবেদিত ও সদা তৎপর। এরই ধারবাহিকতায় বৈশ্বিক মহামারি করোনা ভাইরাস সংক্রমণের শুরুতেই নানাবিধ সহযোগিতামূলক কর্মকাণ্ড ও সহায়তা প্রদানে এ বাহিনীর উদ্যোগ প্রশংসার দাবিদার।

          আমি আশা করছি, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু  শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের  সোনার বাংলাদেশ বিনির্মাণে এ বাহিনী অগ্রণী ভূমিকা পালন করবে।

          আমি বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর সার্বিক সাফল্য ও সমৃদ্ধি কামনা করছি।

জয় বাংলা, জয় বঙ্গবন্ধু

বাংলাদেশ চিরজীবী হোক।”

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে