প্রবীণ সাংবাদিক মুক্তিযোদ্ধা সুমন মাহমুদ আর নেই

শুক্রবার, মে ২২, ২০২০,৫:০৯ অপরাহ্ণ
0
21

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

স্বাধীনতা সংগ্রাম ও মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক, প্রবীণ সাংবাদিক সুমন মাহমুদ মারা গেছেন। ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন। 

আজ শুক্রবার বিকেল ৪টায় শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন রাজধানীর আসগর আলী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায়। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭০ বছর। তিনি স্ত্রী, এক পুত্র ও এক কন্যাসহ অসংখ্য আত্মীয়স্বজন গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল-জাসদের সভাপতি হাসানুল হক ইনু ও সাধারণ সম্পাদক শিরীন আখতার এক শোকবার্তায় সাবেক জাসদ নেতা, প্রবীণ সাংবাদিক সুমন মাহমুদের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ এবং শোকসন্তপ্ত পরিবার ও স্বজনদের প্রতি আন্তরিক সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন।

জাসদের বিবৃতিতে জানানো হয়, ৬০ দশকে ছাত্রলীগের নেতা হিসাবে সুমন মাহমুদ স্বাধীনতা সংগ্রাম ও মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক হিসাবে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছেন, বিএলএফ-এর সদস্য হিসাবে মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ করেন, জাসদের প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকেই জাসদের সাথে যুক্ত ছিলেন এবং ১৯৭৯-৮১ সালে জাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য হিসাবে দায়িত্ব পালন করেন।

পরবর্তীতে তিনি সক্রিয় দলীয় রাজনীতি ছেড়ে সাংবাদিকতাকে পেশা হিসাবে গ্রহণ করেন। তিনি ভোরের কাগজসহ বিভিন্ন জাতীয় দৈনিকে যুক্ত ছিলেন।

মৃত্যুপূর্ব সময়ে তিনি অবসর জীবনযাপন করছিলেন। তার স্ত্রী প্রফেসর ডা. পারভীন শাহীদা আকতার দেশের প্রখ্যাত ক্যান্সার বিশেষজ্ঞ।

পারিবারিক সূত্রে জানানো হয়েছে, সুমন মাহমুদ হৃদরোগের সমস্যা নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন। অবশ্য জাসদের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, তিনি করোনাভাইরাস আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন।

সুমন মাহমুদের এক বোন অধ্যাপক ড. মুশাররাত শবনম জাতীয় কবি নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক। বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শোক বার্তায়ও সুমন করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন বলে উল্লেখ করা হয়েছে।

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে