পর্যাপ্ত খাদ্য মজুত আছে, ভোক্তাদের আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই : খাদ্যমন্ত্রী

বৃহস্পতিবার, মার্চ ১৯, ২০২০,৫:৫৮ পূর্বাহ্ণ
0
33

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

করোনা ভাইরাসের কারণে খাদ্য সঙ্কট হবে না জানিয়ে খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার বলেছেন, পর্যাপ্ত খাদ্য মজুত আছে, ভোক্তাদের আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই। সুতরাং অনেক খাদ্য কিনে মজুত করারও প্রয়োজন নেই।

গতকাল খাদ্য মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে চলমান বাজার মনিটরিং বিষয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে এক মতবিনিময সভায় মন্ত্রী এসব কথা জানান।

মন্ত্রী বলেন, সারা বিশ্বে করোনা ভাইরাস মহামারী আকার ধারন করেছে। পুরো বিশ্বই করোনায় আক্রান্ত হয়েছে, বাংলাদেশও হয়েছে। করোনা ভাইরাসের জন্য খাদ্য নিয়ে ভোক্তারা যেন আতঙ্কিত না হয়। কোন ব্যবসায়ী, মিলার এটাকে যদি পুঁজি হিসাবে ব্যবহার করে বাজার অস্থিতিশীল করার চেষ্টা করে, তবে কোন ক্রমেই সরকার চুপ করে বসে থাকবে না। তিনি বলেন, দেশে পর্যাপ্ত খাদ্য মজুত আছে। শুধু মজুতই নয়, ওএমএসে চাল বিতরণের জন্য ডিলারদের চিঠি দেওয়া হয়েছে। তারা চাল বাজারে বিক্রি করবে। পাশাপাশি আটা বিক্রয় সবসময় চলছে এবং চলবে।

খাদ্যমন্ত্রী বলেন, প্রকৃত ব্যবসায়ী-মিলারদের উচিত মানবতার প্রশ্নে এখন মানুষকে ভালোবাসা, সেবা দান করা এবং নিজের মধ্যে দেশপ্রেম জাগিয়ে তোলা। যদি কেউ এটা নিয়ে বাড়তি সুবিধা, বাড়তি মুনাফা আদায়ের চেষ্টা করে, খাদ্য মন্ত্রণালয় সে বিষয়ে নজর রাখবে। তাদের বিরুদ্ধে কঠিন আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে। তিনি আরো বলেন, আমরা মনিটরিং জোরদার করছি, আরো মনিটরিং টিম গঠন করা হচ্ছে। সামনে রোজাকে সামনে রেখে যাতে কোন অবৈধ ব্যবসা কেউ করতে না পারে সরকার সে ব্যাপারে সচেষ্ট আছে। ভোক্তাদের চিন্তিত হওয়ার কিছু নেই। কেউ মজুত রেখে ভোক্তাদের কষ্টে ফেলার চেষ্টা করলে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়াসহ প্রয়োজনে বাইরে থেকে চাল আমদানি করা হবে। চালের দাম সরকার বাড়তে দেবে না।

মন্ত্রী বলেন, এ মুহুর্তে দেশে ১৭ লাখ ৩৯ হাজার ৪৯৫ মেট্রিকটন খাদ্যশস্য মজুত আছে। যার মধ্যে গম ৩ লাখ ১৯ হাজার মেট্রিক টন, বাকি সব চাল।  আর মাত্র ২৫ দিন পর হাওরের ধান উঠবে সুতরাং চিন্তার কোনো কারণ নেই।

সম্মেলনে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন খাদ্য সচিব ডক্টর মোছাম্মৎ নাজমানারা খানুম, খাদ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক সারোয়ার মাহমুদ-সহ খাদ্য মন্ত্রণালয় ও খাদ্য অধিদপ্তরের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ।

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে