নলছিটিতে পারিবারিক পুষ্টি বাগান করে চাহিদা পূরণ করছে নারীরা

শনিবার, অক্টোবর ৩, ২০২০,৭:৩৪ অপরাহ্ণ
0
111

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

ঝালকাঠি প্রতিনিধি : ঝালকাঠির নলছিটিতে ৩২০টি পারিবারিক পুষ্টি বাগান করে চাহিদা পূরণ করছেন নারীরা। নারীদের স্বাবলম্বি করা ও পুষ্টি চাহিদা পূরণের জন্য বাড়ির আঙিনায় পারিবারিক পুষ্টি বাগানের উদ্যোগ নিয়েছে কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর। আজ শুক্রবার সকালে উপজেলার ভৈবরপাশা ও সিদ্ধকাঠি ইউনিয়নের ১০টি পারিবারিক পুষ্টি বাগান পরিদর্শন করে কৃষি মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. নাসিরুজ্জামান। তিনি নারীদের পরিশ্রমে গড়ে তোলা পুষ্টি বাগান ঘুরে দেখে সন্তোষ প্রকাশ করেন।

নলছিটি উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা ইসরাত জাহান মিলি জানান, বাড়ির আঙিনায় পারিবারিক পুষ্টি বাগান করার জন্য নলছিটির ৩২০টি পরিবারকে সবজির বীজ ও নগদ টাকা দেওয়া হয়েছে। প্রতিটি বাগানে লাউ, শষা, কুমড়া, বরবটি, করলাসহ নানা ধরণের সবজি থাকবে। এতে বছরজুড়ে তারা পুষ্টির চাহিদা পূরণ করতে পারবে। পাশাপশি বিক্রি করে নিজেদের স্বাবলম্বি করতে পারবেন নারীরা।

উপজেলার আমিরাবাদ গ্রামের রুনু বেগম বলেন, আমার বাড়ির উঠানে পাঁচটি বেডে বিভিন্ন ধরণের সবজির চাষ করেছি। কৃষি বিভাগ আমাকে সবজির বীজ ও নগদ টাকা দিয়েছে। পারিবারিক পুষ্টি বাগান নামে একটি প্রকল্পের আওতায় এটি করা হয়েছে। আমাদের পরিবারের চাহিদা মিটিয়ে বাগানে উৎপাদিত সবজি বাইরেও বিক্রি করা যাবে। এতে আমার পরিবারের পুষ্টি পূরণ হবে এবং আমি লাভবানও হবো।

কৃষি সচিবের সঙ্গে পারিবারিক পুষ্টি বাগান পরিদর্শন করেন ঝালকাঠির জেলা প্রশাসক মো. জোহর আলী, বরিশাল কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের অতিরিক্ত পরিচালক মো. আফতাব উদ্দিন, ঝালকাঠি কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপপরিচালক মো. ফজলুল হক, নলছিটি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সাখাওয়াত হোসেন ও নলছিটি উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা ইসরাত জাহান মিলি।

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে