নগরীতে নজরদারি বাড়াচ্ছে চসিক

মঙ্গলবার, ডিসেম্বর ৮, ২০২০,১১:৪৬ পূর্বাহ্ণ
0
4

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

করোনা মহামারির দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবেলায় বুধবার সকাল ৭টা থেকে প্রচার-প্রচারণার পাশাপাশি প্রয়োজনীয় কাজে বাইরে বের হলে জনসাধারণের মাস্ক পরিধান নিশ্চিত করতে মাঠে নামছে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন। কর্পোরেশনকে এই কাজে সহযোগীতা করবে বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির চট্টগ্রাাম সিটি ইউনিট ও বাংলাদেশ ন্যাশনাল ক্যাডেট কোর (বিএনসিসি)’র কর্ণফুলী রেজিমেন্টের সদস্যরা।

গতকাল সোমবার সকালে চসিকের টাইগারপাস অস্থায়ী অফিসে প্রশাসকের দপ্তরে অনুষ্ঠিত এক সভায় এই সিদ্ধান্তের কথা জানানো হয়। বুধবার থেকে নগরীর পাঁচ গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে জনসচেতনতায় ব্যানার লাগানো, নগরজুড়ে মাইকিং, স্বাস্থ্য সুরক্ষা সম্বলিত প্রচার পত্র বিলি করা হবে। যে পাঁচ পয়েন্টে প্রচার প্রচারণা চালানো হবে সেসব স্থান হলো সিমেন্ট ক্রসিং অক্সিজেন, সিটি গেইট, কাপ্তাই রাস্তার মাথা,অক্সিজেন মোড়, শাহ আমানত সেতুসংলগ্ন এলাকা। দুই গ্রুপে বিভক্ত হয়ে নগরীতে প্রচার প্রচারণায় নগরবাসীকে সচেতন করতে বিভিন্ন কর্মাসূচি হাতে নিয়েছে কর্পোরেশন। একটি গ্রুপ কোন ব্যক্তি মাস্ক পরিধান না করে যাতে নগরে ঢুকতে তাদের ফিরিয়ে দিবে। অপর গ্রুপ জনবহুল এলাকা যেমন বাজার শপিংমলে আাসা ক্রেতা সাধাারণের মাঝে প্রচারপত্র বিলির পাশাপাশি মাস্ক পরিধান নিশ্চিতে ব্যবস্থা নিবে।

সভায় প্রশাসক খোরশেদ আলম সুজন উপস্থিত ছিলেন। এত অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা কাজী মুহাম্মদ মোজাম্মেল হক, কর্পোরেশনের ভারপ্রাপ্ত স্বাস্থ্য কর্মকর্তা মো. আলী, প্রশাসকের একান্ত সচিব আবুল হাসেম, বাংলাদেশ ন্যাশনাল ক্যাডেট কোর (বিএনসিসি) কর্ণফুলী রেজিমেন্টের কমান্ডার মেজর এ কে এম শামসুদ্দিন, বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির চট্টগ্রাম সিটি ইউনিটের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল জব্বার।

সভায় চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের প্রশাসক খোরশেদ আলম সুজন আরো বলেন , করোনার দ্বিতীয় ঢেউ এর কারণে দেশে সংক্রমন ও মৃতের সংখ্যা বাড়ছে প্রতিদিন। এই মহামারির মধ্যে দেশের অর্থনীতির চাকা সচল রাখতে হবে। টীকা না আসা পর্যন্ত তাই প্রয়োজনীয় কাজে বাইরে বের হলে মাস্ক পরিধান করে সুরক্ষা নিয়ে চলাফেরার বিকল্প কোন পথ নাই।

তিনি বলেন নগরবাসীর প্রতি আমার অনুরোধ আপনারা অবশ্যই বাইরে বের হলে মাস্ক পরিধান করবেন। চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন কোন ব্যক্তি মাস্ক পরিধান না করলে তাকে সেবা প্রদান করবেনা। কর্পোরেশন করোনাকালে নো মাস্ক, নো সার্ভিস সিদ্ধান্তের ভিত্তিতে নাগরিকসেবার কাজ পরিচালনা করবে।

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে