দেবিদ্বারে ঈগলের পক্ষে কাজ করায় যুবকের হাত-পা ভেঙ্গে দিল সাবেক এমপির কর্মীরা

শনিবার, ফেব্রুয়ারি ১০, ২০২৪,৯:২৪ অপরাহ্ণ
0
8

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

দেবিদ্বার (কুমিল্লা) প্রতিনিধি : কুমিল্লার দেবিদ্বারে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ঈগল প্রতীকের পক্ষে কাজ করায় মোঃ ছবির হোসেন (২৭) নামের এক যুবকের দুটি হাত ও এক পা ভেঙ্গে দিয়েছে সাবেক এমপি রাজী মোহাম্মদ ফখরুলের কর্মীরা। ঘটনাটি ঘটে শুক্রবার রাতে উপজেলার জাফরগঞ্জ ইউনিয়নের জাফরগঞ্জ বাজারে এলাকায়।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সম্প্রতি অনুষ্ঠিত দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ঈগল প্রতীকের প্রার্থী মো. আবুল কালাম আজাদের পক্ষে কাজ করেন দক্ষিণ নারায়নপুর গ্রামের তোফাজ্জাল হোসেনের ছেলে মোঃ ছবির হোসেন। সে পেশায় একজন সিএনজি চালক। নির্বাচনে নৌকার পরাজয়ের কারনে ছবির’কে হুমকী দিয়ে আসছিলো সাবেক এমপি রাজী মোহাম্মদ ফখরুলের কর্মীরা। শুক্রবার রাত ১০টায় উপজেলার জাফরগঞ্জ কলেজ গেইট এলাকা থেকে ছবির হোসেনকে তার সিএনজিসহ তুলে নিয়ে যায় একদল সন্ত্রাসী। পরে তারা ছবির হোসেন’র দুটি হাত ও একটি পা ভেঙ্গে এবং মারধর করে গঙ্গমন্ডল এলাকার তিতু মিয়ার বাড়ির পাশে কবরস্থানের নিকট ফেলে যায়। গুরত্বর আহত অবস্থায় স্থানীরা ছবির’কে উদ্ধার করে দেবিদ্বার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য রাতেই কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন।
চিকিৎসারত ছবির হোসেন জানান, নির্বাচনে নৌকার পক্ষে কাজ করার জন্য আমাকে অনেক চাপ প্রয়োগ করেছে সাবেক চেয়ারম্যান সোহরাব হোসেন ও গঙ্গামন্ডল গ্রামের আওলাদ। নৌকার পরাজয়ের পরও আমাকে বিভিন্ন ভাবে তারা হুমকী দিয়ে আসছিলো। শুক্রবার রাতে কলেজ গেইটে আওলাদ, অপু, আক্তার, কামালসহ আরো কিছু লোক আমার সিএসজি থামিয়ে গলায় ছুরি ধরেন। পরে ওই জায়গা থেকে তারা জোরপূর্বক ভাবে তুলে একটি নির্জণ জায়গায় নিয়ে আমাকে অনেক মারধর করে এবং আমার হাত পা ভেঙ্গে একটি কবরস্থানের পাশে ফেলে আমার সিএনজি, মোবাইল ও সাথে থাকা টাকা নিয়ে পালিয়ে যায় তারা। আমি অনেক আকুতি মিনতি করে তাদের পা ধরেও রক্ষা পাইনি। শনিবার বিকালে ছবির হোসেনের বড় ভাই সোহাগ মিয়া বাদী হয়ে থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছে।
এ ব্যাপারে দেবিদ্বার থানার ওসি নয়ন মিয়া জানান, অভিযোগ পেয়েছি, প্রাথমিক তদন্ত কাজ চলছে, ঘটনার সত্যতা পেলে মামলা নেওয়া হবে।

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে