দক্ষতা ও সুশিক্ষা ছাড়া ভালো কিছু অর্জন সম্ভব নয় : শিক্ষা উপমন্ত্রী

রবিবার, জানুয়ারি ৯, ২০২২,৯:৩২ পূর্বাহ্ণ
0
6

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

শিক্ষা উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল বলেছেন, আমাদের সন্তানেরা যদি কিছু নির্দিষ্ট দক্ষতামূলক প্রশিক্ষণ পান তাহলে জীবনে উন্নতি করতে পারবে। পড়ালেখার পাশাপাশি যদি ইংরেজি, আরবি, ফারসিসহ বিভিন্ন ভাষার দক্ষতা অর্জন করতে পারে তাহলে বিদেশ গেলেও অল্পসময়ে সফলতা অর্জন করতে পারবে। নিজের দক্ষতা নিজেকেই অর্জন করতে হবে, তাহলে সাফল্যের শিখরে পৌঁছানো যাবে। দক্ষতা ও সুশিক্ষা অর্জন ছাড়া জীবনে ভালো কিছু অর্জন সম্ভব নয়।

তিনি বলেন, বর্তমান প্রজন্মের যারা ছাত্রলীগ করেন তাদের উচ্চ শিক্ষায় শিক্ষিত হতে হবে। শুধু রাজনীতি করলে চলবেনা। নিজেকে গড়ে তুলতে হবে। এক কলম লিখতে নাপারলে ছাত্রলীগের পদ পদবী নিয়ে কোন লাভ হবেনা।
শনিবার (৮ জানুয়ারি) রাত ৯টায় হাটহাজারী উপজেলার শিকারপুরস্থ ইডেন ইংলিশ স্কুল আয়োজিত ২য় দ্বৈত ব্যাডমিন্টন টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে শিক্ষা উপমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

ইডেন ইংলিশ স্কুলের প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান খালেদ মাহমুদের সভাপতিত্বে ব্যাডমিন্টন টুর্নামেন্টের উদ্বোধক ছিলেন চট্টগ্রাম জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এম এ সালাম। বিশেষ অতিথি ছিলেন হাটহাজারী উপজেলা চেয়ারম্যান এস এম রাশেদুল ইসলাম, চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সাধারন সম্পাদক ফরিদ উদ্দিন চৌধুরী, শিকারপুর ইফপি’র নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান আব্দুল খালেক, রাঙ্গুনিয়ার সরফভাটা ইউপি চেয়ারম্যান শেখ ফরিদ উদ্দিন চৌধুরী, বেতাগী ইউপি চেয়ারম্যান শফিউল আলম। স্বাগত বক্তব্য রাখেন টুর্নামেন্ট পরিচালনা কমিটির সভাপতি মো. সেলিম।
শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী বলেন, মাইকে যারা ভাষন দেন তারা সরকার চালায় না, রাজনৈতিক ব্যক্তিরা সীমিত সময়ের জন্য সরকারে আসে। সরকার চালায় সরকারের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দরা সরকারের নেতৃত্ব দেন শুধুমাত্র। চালানো আর নেতৃত্ব দেয়ার মধ্যে পার্থক্য আছে। নেতা হবে একজন, আর সরকার চালায় শত শত সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। এই শত শত লক্ষ লক্ষ কর্মকর্তা-কর্মচারীর মধ্যে যদি বঙ্গবন্ধুর আদর্শের লোকজন না থাকতে পারেন, তাহলে অন্য আদর্শের লোকজন ঢুকে যাবে।

তিনি বলেন, সরকার পরিচালনা করতে গিয়ে আমাদের রাজনৈতিক বিশ্বাসে বিশ্বাসী ব্যক্তিরা যেভাবে কাজ কওে, জননেত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনা যেভাবে পালন করে, অন্য মানসিকতার কেউ সেভাবে পালন করেনা। তাই যারা ছাত্রলীগের রাজনীতি করেন তাদের দায়িত্ব রাজনীতির পাশাপাশি নিজেকে দক্ষ করে গড়ে তোলা।

 উদ্বোধকের বক্তব্যে জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এম এ সালাম বলেন মাদক থেকে দূরে থাকার জন্য আমাদের যুব সমাজকে খেলাধুলায় ব্যস্ত রাখতে হবে। খেলাধুলার মাধ্যমে শুধু বিনোদন নয়, আমরা শৃঙ্খলা শিখতে পারছি, শরীর চর্চা হচ্ছে, পাশাপাশি মাদকাসক্তি থেকে নিজেদের কে বাঁচাতে পারছি।

তিনি বলেন, যুবসমাজকে মাদকাসক্তি থেকে দূরে রাখার জন্য, জীবনের শৃঙ্খলা আনার জন্য, এবং শিক্ষার উন্নয়নে অবদান রাখার জন্য, খেলাধুলার আয়োজন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ এবং সময়পোযোগী। এ ধরনের আয়োজন বেশি বেশি করতে হবে, তাহলেই আমাদের যুবসমাজকে মাদকের করাল গ্রাস থেকে রক্ষা করা সম্ভব হবে।

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে