জনগণের স্বাস্থ্যবিধি সচেতনতায় নিরলস প্রচেষ্টা তাড়াইল থানার ওসির

মঙ্গলবার, জুন ১৬, ২০২০,৩:০৯ অপরাহ্ণ
0
23

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

আল মামুন খান, তাড়াইল (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি : কিশোরগঞ্জের তাড়াইলে করোনাভাইরাস আক্রান্তের সংখ্যা হ্রাস করার জন্য সাধারণ লোকদের সচেতনতা বৃদ্ধি ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে মাইকিংসহ নানা প্রচারণা আরো জোরদার করতে হবে।

সরেজমিনে দেখা যায়, হাট-বাজার, চায়ের দোকানসহ রাস্তাঘাটে অবাধে চলাফেরা করছেন সাধারণ লোকজন। এক্ষেত্রে মানা হচ্ছে না স্বাস্থ্যবিধি। নিয়মিত ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা অতীব জরুরি। ভ্রাম্যমাণ আদালতের   মাধ্যমে জরিমানা আদায়, মাস্ক ব্যবহার নিশ্চিতকরণ, স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা, করোনা আক্রান্ত ব্যক্তি ও তাদের পরিবারের সাথে সৌহার্দ্যপূর্ণ আচরণ করতে সাধারণ লোকজনদের উদ্বুদ্ধ করতে হবে উপজেলা করোনাভাইরাস প্রতিরোধ কমিটিকে। খোঁজ নিয়ে জানা যায়, করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে মাস্ক ব্যবহার বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। মাস্ক ছাড়া ঘরের বাইরে বের হতে বারবার নিষেধ করছে উপজেলা প্রশাসন।

তারপরও যারা মাস্ক ছাড়া বাইরে বের হচ্ছেন, তাদেরকে জরিমানাসহ সতর্ক করে দেয়া হচ্ছে। দেখা যায়, তাড়াইল উপজেলার সদর বাজারে হ্যান্ডমাইক নিয়ে করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার জন্য জনগনকে সচেতন করছেন তাড়াইল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মুজিবুর রহমান। একা একাই বাজারের এক প্রান্ত থেকে অন্য প্রান্তে নিরলসভাবে কোভিড-১৯ প্রতিরোধে প্রচারণা চালাচ্ছেন। প্রচারনাকালীন সময়ে জনগনকে মাস্ক ব্যবহার ও সামাজিক দুরত্ব বজায় রাখতে উপজেলার বিভিন্ন গ্রাম থেকে আগত ক্রেতা-বিক্রেতাদের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছেন। প্রতিদিনই উপজেলার বিভিন্ন হাটবাজারে প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন ওসি মুজিবুর রহমান।

উপজেলার সচেতনমহল মনে করছেন, মাস্ক ব্যবহার করার পাশাপাশি করোনার এ সময়ে বাইরে বের হলে বাধ্যতামূলক মুখে মাস্ক ব্যবহার, শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখা ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে সাধারণ লোকজনদের নির্দেশনাটা আরো জোরদার করতে হবে। 

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে