কোচদের ছাড়াই পাকিস্তানে সফরে যাচ্ছে বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দল

শনিবার, সেপ্টেম্বর ২৮, ২০১৯,১০:০২ পূর্বাহ্ণ
0
184

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

নারী ক্রিকেট দলের কোচিং স্টাফের প্রায় সবাই ভারতীয়। তারা পাকিস্তান সফরে যাবেন না এটাই অনুমেয়। তাই বাংলাদেশ জাতীয় নারী ক্রিকেট দল আগামী মাসে পাকিস্তান সফরে যাচ্ছে ভারতীয় কোচদের ছাড়াই। খেলবে লাহোরে। নিরাপত্তা নিয়ে বিসিবি শঙ্কিত নয়। সেজন্যই তো নারী দল পাঠাচ্ছে। কোচ হিসেবে যাবেন দলের সঙ্গে হাই পারফরম্যান্স ইউনিটের সিনিয়র কোচ দিপু রায় চৌধুরী। দলের ম্যানেজার জাভেদ ওমর বেলিম মনে করেন মূল কোচরা না থাকায় কোনো সমস্যা হবে না। ভারতীয় কোচিং স্টাফরা পাকিস্তানে না গেলেও সামনের মাসে শ্রীলঙ্কায় অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া এশিয়া কাপ অনূর্ধ্ব-২৩ টুর্নামেন্টে থাকবেন।

যদিও ছেলেদের জাতীয় দলকে পাঠাতে ১০০ বার ভাবছে বোর্ড। নারী-পুরুষ দলের এ বৈষম্য নিয়ে অবশ্য কারো মাথাব্যাথা নেই। তবু লাল সবুজের নারী দল সামনের মাসের ২৩ অক্টোবর লাহোরের বিমানে উঠবে।

জাতীয় নারী ক্রিকেট দল ম্যানেজার জাভেদ ওমর বেলিম বলেন, একটা সিজনের জন্য যাবে এ কারণে সমস্যা হবার কথা নয়। টেকনিক্যাল প্রোবেলেম যেহেতু আছে, সেহেতু ভয় পাওয়ার কিছু নেই। পাকিস্তানে যদি ভালো করে খেলা হয় এবং খেলতে পারে তাহলে ওটাই ওদের ফিউচার কনফিডেন্স দিবে। সামনের মাসেই শ্রীলঙ্কায় যাবে ইমার্জিং টিম। জাতীয় দলের সঙ্গে না গেলেও লঙ্কায় যাবেন ভারতীয় কোচরা। ফলে জাতীয় দল থাকবে লোকাল কোচদের অধীনে।

জাতীয় দলের পাকিস্তান সফরের কোচ দিপু রায় চৌধুরী বলেন, পাকিস্তানের র‌্যাংক আমাদের থেকে তিন ধাপ উপরে আছে। আর দ্বিতীয়ত আমরা এখনো পাকিস্তানকে আজ পর্যন্ত হারাতে পারিনি। আমি চাইবো ওদেরকে হারিয়ে আসতে। নিয়মিত কোচদের না থাকা আর নিরপত্তার শঙ্কা ভুলে পাকিস্তানে ভালো করার লক্ষ্য বাংলাদেশের। জানালেন কোচ ও ম্যানেজার।


জাভেদ ওমর বেলিম বলেন, সিরিজটা গুরুত্বপূর্ণ। যদি ওরা ভালো খেলে তাহলে, কনফিডেন্স লেভেলটা ভালো হবে। লাহোরে ২ টি ওয়ানডে ও ৩ টি টোয়েন্টি ম্যাচ খেলবে জাহানারা-সালমারা।

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে