ঈদের পর এসএসসির ফল, মোবাইলে ফল পাওয়া যাবে প্রি-রেজিস্ট্রেশন করে

মঙ্গলবার, মে ১৯, ২০২০,৫:৪৭ অপরাহ্ণ
0
32

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

প্রধানমন্ত্রীর কাছে প্রস্তাব পাঠিয়েছে শিক্ষা মন্ত্রণালয় আগামী ২২ মে’র পর যেকোনো দিন এসএসসি ও সমমানের ফল প্রকাশের অনুমতি চেয়ে। তবে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের নির্ভরযোগ্য সূত্রে জানা গেছে, ঈদের পরপরই এসএসসির ফলপ্রকাশ হতে পারে বলে।

করোনার প্রাদুর্ভাবে এবার গতানুগতিক প্রক্রিয়ায় ফল প্রকাশিত হবে না। শিক্ষার্থীদের স্ব স্ব স্কুলে গিয়ে ফল প্রকাশের সুযোগ নেই। প্রতিবছর বোর্ড চেয়ারম্যানদের সঙ্গে নিয়ে শিক্ষামন্ত্রী প্রধানমন্ত্রীর কাছে ফলাফল হস্তান্তর করেন। এরপর মন্ত্রণালয়ে সংবাদ সম্মেলন করেন। এর কোনোকিছুই এবার হবে না। তবে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর কাছে ফলাফল হস্তান্তরের চেষ্টা চলছে বলে জানা যায়।

অন্যান্য বারের মতো এবারও এসএমএসের মাধ্যমে ফল জানার সুযোগ থাকবে। পাশাপাশি শিক্ষার্থীরা আগেভাগেই প্রি-রেজিস্ট্রেশন করলেও ফল প্রকাশের সঙ্গে সঙ্গে তা মোবাইলেও পৌঁছে যাবে।

ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের সিনিয়র সিস্টেম এনালিস্ট মঞ্জুরুল কবীর বলেন, শিক্ষার্থীরা মোবাইলে এসএমএসের মাধ্যমে ফলাফল পেলেও সবাই সাধারণত স্কুলে গিয়েই ফল সংগ্রহ করতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করে। কিন্তু এবার যেহেতু স্কুলে যাওয়ার সুযোগ নেই। তাই টেলিটকের সহায়তায় শিক্ষার্থীদের মোবাইলে ফল পৌঁছে দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে। এজন্য গত সোমবার থেকে প্রি-রেজিস্ট্রেশন শুরু হয়েছে।

প্রি-রেজিস্ট্রেশন করার জন্য SSC লিখে স্পেস বোর্ডের নামের প্রথম তিন অক্ষর লিখে স্পেস রোল নম্বর লিখে স্পেস পাসের সাল লিখে ১৬২২২ নম্বরে পাঠিয়ে দিতে হবে। মাদরাসা বোর্ডের জন্য Dakhil স্পেস Mad এবং কারিগরি বোর্ডের জন্য SSC স্পেস Tec লিখতে হবে। এতে ফলাফল প্রকাশের পরপরই যেই নম্বর থেকে এসএমএস পাঠানো হয়েছিল সেই নম্বরে ফলাফল চলে আসবে।

জানা যায়, চলতি মাসের প্রথম সপ্তাহেই এবারের এসএসসির ফল প্রকাশের কথা ছিল। কিন্তু করোনাভাইরাসের কারণে তা সম্ভব হয়নি। তবে এবারই প্রথম পরীক্ষকদের কাছ থেকে ডাকযোগে এসএসসির ওএমআর শিট বোর্ডে এনে তা স্ক্যানিং করা হয়েছে। চলতি মাসে ফল প্রকাশিত হলে আগামী ৬ জুন থেকে অনলাইনে একাদশে ভর্তি কার্যক্রম শুরু করা হবে।

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে