‘আগামী কয়েক বছরে ডিজিটাল ডিভাইস রপ্তানিকারক দেশ হবে বাংলাদেশ’

বৃহস্পতিবার, জানুয়ারি ২৮, ২০২১,৯:৩৪ পূর্বাহ্ণ
0
15

[ + ফন্ট সাইজ বড় করুন ] /[ - ফন্ট সাইজ ছোট করুন ]

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেছেন, আগামী কয়েক বছরের মধ্যেই বাংলাদেশ ডিজিটাল ডিভাইস রপ্তানিকারক দেশ হিসেবে বিশ্বে নিজেদের সক্ষমতা অর্জন করবে।

          প্রতিমন্ত্রী গতকাল নরসিংদীর শিবপুরে ফেয়ার গ্রুপের স্যামসাং এয়ার কন্ডিশন কারখানার উদ্বোধন উপলক্ষে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন।

          এর আগে ফেয়ার গ্রুপের তত্ত্বাবধানে পরিচালিত স্যামসাং টেলিভিশন, স্মার্টফোন, রিফ্রেজারেটর, ওয়াশিং মেশিনের মেনুফেকচারিং কার্যক্রম প্রত্যক্ষ করেন এবং কারখানার বিভিন্ন বিভাগ পরিদর্শনকালে সেখানে কর্মরত কর্মীদের সঙ্গে আলাপ করেন পলক।

          আলাপ শেষে স্যামসাং কারখানার ১ হাজার ৭০০ কর্মীর অধিকাংশই স্থানীয় এবং ডিপ্লোমা পাশ করে দক্ষ কর্মী হয়ে উঠেছে বলেও সন্তুষ্টি প্রকাশ করেন প্রতিমন্ত্রী।

          প্রতিমন্ত্রী বলেন, ফেয়ার গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মাহবুবের নেতৃত্বে গত দুই বছরে স্যামসাং এখানে প্রায় ১৫ লাখ হ্যান্ডসেট তৈরি করেছে। আগামী বছর থেকে এই কারখানা থেকে ২৫ লাখ স্মার্টফোন তৈরি করবে। বাংলাদেশে আর কোনো স্যামসাং হ্যান্ডসেট আমদানি হবে না। এমনকি  স্যামসাং বাংলাদেশে সর্বাধুনিক এস ২১ ফোন তৈরি করছে। আশা করা যাচ্ছে আগামী দু-এক বছরের মধ্যে স্যামসাংয়ের টিভি, রেফ্রিজারেটর, এয়ারকন্ডিশন ও স্মার্টফোন কেবল বাংলাদেশে তৈরিই হবে না বিদেশে রপ্তানি শুরু হবে। অল্পদিনের মধ্যেই বাংলাদেশ ডিজিটাল ডিভাইস রপ্তানিকারক দেশ হিসেবে পরিণত হবে।

          উল্লেখ্য, এয়ারকন্ডিশন কারখানাটি পুরোপুরি চালু হলে ২০০ মানুষের কর্মসংস্থান  এবং বছরে ১ লাখ এয়ার কন্ডিশনার প্রস্তুত করা সম্ভব হবে বলে জানানো হয়।

          প্রতিমন্ত্রী প্রযুক্তিনির্ভর দক্ষ মানবসম্পদ তৈরির লক্ষ্যে নরসিংদীতে আইসিটি বিভাগের উদ্যোগে হাইটেক পার্ক স্থাপনের ঘোষণা দেন।

          পরে প্রতিমন্ত্রী এয়ারকন্ডিশন কারখানার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন।

বিঃদ্রঃ মানব সংবাদ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে